ওসমানীনগরে যুবতীকে পাশবিক নির্যাতনের দায়ে প্রবাসী গ্রেপ্তার

প্রকাশিত: ৩:৪৭ অপরাহ্ণ, নভেম্বর ৫, ২০১৮

ওসমানীনগরে যুবতীকে পাশবিক নির্যাতনের দায়ে প্রবাসী গ্রেপ্তার

ওসমানীনগর সংবাদদাতা
ওসমানীনগরে ১৯ বছরের এক যুবতিকে বাসার কাজে রেখে পাশবিক নির্যাতনের অভিযোগে গ্রেপ্তার করেছে থানা পুলিশ। রোববার রাতে নির্যাতিত যুবতি বাদী হয়ে ওসমানীনগর থানায় নুনু মিয়া(৬০)কে আসামী করে (০২/১৮) মামলা দায়ের করলে সোমবার বিকেল সাড়ে ৩টার দিকে নুনু মিয়াকে তার বাসা থেকে গ্রেপ্তার করে পুলিশ। গ্রেপ্তার নুনু মিয়া উপজেলার ব্রাহ্মণগ্রাম গ্রামের রহিম উদ্দিনের ছেলে ও বৃটেন প্রবাসী।

জানাগেছে, উপজেলার সাদীপুর ইউপির দক্ষিণ কালনীচর গ্রামের পঙ্গু মনর আলীর ১৯ বছর বয়সী যুবতি মেয়ে বৃটেন প্রবাসী নুনু মিয়া প্রায় ৭মাস পূর্বে তার গোয়ালাবাজারস্থ বাসার কাজের জন্য ৪ হাজার টাকা বেতনে আনেন। কিছুর দিন পর মেয়েটিকে বিভিন্ন সময়ে নুনু মিয়া পাশবিক নির্যাতন করতে থাকেন। এক পর্যায়ে মেয়েটি ২ মাসের অন্ত:সত্তা হয়ে পড়লে নুনু মিয়া তাকে বিয়ের প্রলোভন দিয়ে ঔষধ সেবনের মাধ্যমে অন্ত:সত্তার বিষয়টি সমাধান করে ফেলেন।

পরবর্তীতে মেয়েটি আবারও নুনু মিয়ার দ্বারা পাশবিক নির্যাতনের শিকার হলে সে সিলেট এমএজি ওসমানী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের ওসিসিতে ভর্তি হয়। রোববার রাতে নুনু মিয়ার বিরুদ্ধে পাশবিক নির্যাতনের অভিযোগ এনে ওসমানীনগর থানায় মেয়েটির দায়োরকৃত এজাহারের ভিত্তিতে সোমবার তাকে গ্রেপ্তার করে থানা পুলিশ।

ওসমানীনগর থানার ওসি (তদন্ত) এসএম মাইন উদ্দিন পাশবিক নির্যাতনের ঘটনা নিশ্চিত করে বলেন, এ ঘটনায় মামলা হয়েছে। আসামী নুনু মিয়াকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে।

  •  

এ সংক্রান্ত আরও সংবাদ

সর্বশেষ ২৪ খবর