তমিজ উদ্দিনকে নিয়ে লক্ষ্মীপ্রসাদ পূর্ব ইউনিয়নবাসীর নতুন স্বপ্ন

প্রকাশিত: ১০:১৭ অপরাহ্ণ, জানুয়ারি ১৮, ২০২১

তমিজ উদ্দিনকে নিয়ে লক্ষ্মীপ্রসাদ পূর্ব ইউনিয়নবাসীর নতুন স্বপ্ন

নিজস্ব প্রতিবেদক
সিলেটের কানাইঘাট উপজেলার ১নং লক্ষ্মীপ্রসাদ পূর্ব ইউনিয়ন। এই ইউনিয়নের ৯নং ওয়ার্ডের টানা দুইবারের নির্বাচিত মেম্বার এম. তমিজি উদ্দিন। উপজেলা আওয়ামী লীগের অর্থসম্পাদকও তিনি। একটি ওয়ার্ডের মেম্বার হলেও তাঁর উন্নয়ন ও সেবামূলক কর্মকান্ড পুরো ইউনিয়নব্যাপী বিস্তৃত। ব্যক্তিগতভাবে অনেক রাস্তাঘাট পাকা করণসহ ইউনিয়নের অবকাঠামোগত ব্যাপক উন্নয়ন করে চলেছেন তিনি। এমনকি এই অবহেলিত ইউনিয়নের মানুষের চিন্তা করে তাঁর নিজ অর্থায়নে এলাকার প্রাপ্ত বয়স্কদের সামাজিক বিবাহের জন্য একটি কমিউনিটি সেন্টার নির্মাণেরও উদ্যোগ নিয়েছেন। যেখানে বর ও কনে পক্ষ বিনা ভাড়ায় সেন্টারটি ব্যবহার করতে পারবেন। পরোপকারী এম. তমিজ উদ্দিন এভাবে এলাকার মানুষের সাহায্যে সর্বদা এগিয়ে আসেন। উনার কাছে সাহায্য চেয়ে খালি হাতে ফিরেছেন এমন কোনো ব্যক্তি ওই ইউনিয়নে খুঁজে পাওয়া যাবে না। এলাকার বেকার যুবকদের কর্মসংস্থানের লক্ষ্যে কাজ করে যাচ্ছেন তিনি। তার প্রতিষ্ঠানে বিভিন্ন পদে কাজ করে শত পরিবার আজ স্বাবলম্বী। যোগাযোগ বিচ্ছিন্ন ইউনিয়নে যথা সময়ে রোগীদের সেবা দিতে তাঁর অর্থে দুইটি পিসবোড ক্রয় করেছেন। রোগীরা প্রয়োজনীয় সময়ে ওই পিসবোড ব্যবহার করে সদরে গিয়ে চিকিৎসা সেবা গ্রহণ করতে পারেন।

 

তিনি একজন সফল পাথর ব্যবসায়ী ও একাধিক প্রতিষ্ঠানের কর্ণধার এবং হতদরিদ্র হাজারো শ্রমিকের কর্মসংস্থান দাতা। গণমানুষের জীবনমানের উন্নয়নেও তিনি অতি আত্মনিবেদিত। সুখে-দুঃখে সবসময় মানুষের পাশে থাকা তার স্বভাবের অন্তর্ভুক্ত। বৈশ্বিক মহামারি করোনাকালে দেশের বিভিন্ন স্থানে যখন কতিপয় চেয়ারম্যান মেম্বার সরকারি সাহায্য লোপাটের মহোৎসব চালিয়ে ছিলেন, টিক সেই বিপদসংকুল সময়ে এম. তমিজ উদ্দিন এককভাবে দুর্দশাগ্রস্থ ও বিপদগ্রস্থ মানুষের পাশে দাঁড়িয়েছেন। ইউনিয়নসহ গোটা উপজেলায় জীবনের ঝুঁকি নিয়ে মানুষের দ্বারে দ্বারে ঘুরেছেন। ব্যক্তিগত তহবিল থেকে কোটি কোটি টাকার সাহায্য পৌঁছে দিয়েছেন মানুষের ঘরে ঘরে। তার এ মানবতাবাদী ও উন্নয়নমূলক কর্মকান্ড দেখে ইউনিয়নবাসী তাঁকে ইউনিয়নের কর্ণধার হিসেবে নতুন করে স্বপ্ন দেখতে শুরু করেছেন। ইউনিয়নের সাধারণ মানুযষের বক্তব্য, এম. তমিজ উদ্দিনের মত আত্মনিবেদিত মানুষ এই ইউনিয়নের প্রতিনিধিত্ব পেলে যোগাযোগ বিচ্ছিন্ন এই অবহেলিত ইউনিয়নকে সার্বিক যোগাযোগ স্থাপনসহ একটি আদর্শ ও উন্নত ইউনিয়নে রূপান্তরিত করতে পারবেন।

 

এলাকাবাসী জানান, ইউনিয়নের জীবনমানোন্নয়নে যোগাযোগ ব্যবস্থা বাধাগ্রস্থ একমাত্রই কারণ। যারাই এই ইউনিয়নে চেয়ারম্যান হিসেবে প্রতিনিধিত্ব করেন তারা সকলেই ছিলেন বিরোধী দলীয় লোক। ফলে সরকারি উন্নয়ন থেকে বার বার বঞ্চিত হয় ইউনিয়নটি। ইউনিয়নবাসীর উন্নয়নে সরকার দলীয় কোনো সুহৃদ ব্যক্তি প্রতিনিধিত্বে আসলে অবশ্যই ইউনিয়নটি অচিরেই একটি মডেল ও আদর্শ ইউনিয়নে পরিণত হবে। তথা এলাকার যোগাযোগ ব্যবস্থা অনেক উন্নত হবে। সেই সাথে ইউনিয়নের শিক্ষা ও মেধার বিকাশ প্রসারিত হবে বলে অভিমত ব্যক্ত করেন সুশিল সমাজের নেতৃবৃন্দ।

 

তারা মনে করেন, এম. তমিজ উদ্দিন জনপ্রতিনিধি হিসেবে তাঁর দীর্ঘদিনের অভিজ্ঞতাকে কাজে লাগিয়ে ও সরকার দলীয় ইউনিয়নের একমাত্র আস্থাভাজন ব্যক্তি হিসেবে এলাকার উন্নয়নে অনেক কাজ করতে পারবেন। তাঁর মাধ্যমে ইউনিয়নের উত্তরোত্তর উন্নয়ন সাধন সম্ভব।

 

তারা বলেন, এম. তমিজ উদ্দিন চেয়ারম্যান না হওয়া সত্বেও এ পর্যন্ত ইউনিয়নবাসীর জন্য অনেক কিছু করছেন, আগামীতেও করবেন বলে বিভিন্ন সমাবেশে প্রতিশ্রুতি দিচ্ছেন। আমাদের বিশ্বাস তিনি তাঁর কথা রাখবেন। তাই ইউনিয়নবাসী ঐক্যবদ্ধভাবে আসন্ন ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচনে দলমতের উর্ধ্বে থেকে এম. তমিজ উদ্দিনকে ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান হিসেবে নির্বাচিত করতে সকলের প্রতি আহ্বান জানান সমাজবোদ্ধারা।

 

ইউনিয়নবাসী জানান, উন্নয়নের দিক দিয়ে সর্বাধিক পিছিয়ে পড়া লক্ষ্মীপ্রসাদ পূর্ব ইউনিয়নকে একটি আধুনিক ও আদর্শ ইউনিয়ন হিসেবে গড়ে তুলতে হলে এম. তমিজ উদ্দিনের মত উন্নয়নকামী ও আত্মনিবেদিত মানুষের অতি প্রয়োজন। তাই ইউনয়নের সর্বশ্রেণির ও সর্ব বয়সের মানুষ আসন্ন ইউপি নির্বাচনে এ. তমিজ উদ্দিনকে সরকার দলের চেয়ারম্যান হিসেবে দেখতে চান।

 

ইউনিয়বাসীর ন্যায় এম. তমিজ উদ্দিনকে আওয়ামী লীগ থেকে চেয়ারম্যান পদে প্রার্থী দেওয়ার প্রত্যাশা ব্যক্ত করেন দলীয় নেতাকর্মীরা। নিজ দল ও ইউনিয়নবাসীর আগ্রহ ও প্রত্যাশায় সাড়া দিয়ে এম. তমিজ উদ্দিন আসন্ন ইউপি নির্বাচনে লক্ষ্মীপ্রসাদ পূর্ব ইউনিয়নে চেয়ারম্যান পদে ইতোমধ্যে প্রার্থী হওয়ার প্রত্যয় ব্যক্ত করেছেন। এ লক্ষ্যে তিনি বিভিন্ন এলাকায় গণসংযোগ ও সভা-সমাবেশও করে যাচ্ছেন। এতে করে প্রত্যাশার চেয়েও অধিক সাড়া এবং সমর্থন পাচ্ছেন তিনি।

  •  

এ সংক্রান্ত আরও সংবাদ

সর্বশেষ ২৪ খবর