ভারতীয় ব্যক্তিত্বদের মধ্যে সবার শীর্ষে মোদি-সানি!

প্রকাশিত: ১:২৭ অপরাহ্ণ, ডিসেম্বর ৪, ২০১৯

ভারতীয় ব্যক্তিত্বদের মধ্যে সবার শীর্ষে মোদি-সানি!

ডেস্ক প্রতিবেদন : ২০১৮ থেকে ২০১৯ এ দু’বছরে টানা অনলাইনে সার্চ দিয়ে খোঁজা ভারতীয় ব্যক্তিত্বদের মধ্যে সবার শীর্ষে রয়েছেন দেশটির প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি। তালিকায় প্রথম দশে আরো যারা জায়গা করে নিয়েছেন সেলিব্রিটি তারকা ক্রিকেটার এমএস ধোনি, অভিনেত্রী প্রিয়াঙ্কা চোপড়া জোনস, সানি লিওন। ভারতীয় বিমান বাহিনীর সদস্য উইং কমান্ডার অভিনন্দন বর্তমানও তালিকায় প্রথম দশে স্থান করে নিয়েছেন। তালিকায় স্থান পেয়েছেন আসামে না ফেরার দেশে চলে যাওয়া বিজেপি নেতা ও সাবেক কেন্দ্রীয় অর্থমন্ত্রী অরুণ জেটলি। ‘Yahoo India’ এর সাম্প্রতিক এক জরিপে এই তথ্য সামনে উঠে এসেছে।

সেখানে দেখা গেছে, চলতি বছরে এখনও পর্যন্ত যে সকল ভারতীয় ব্যক্তিদেরকে অনলাইনে সার্চ করা হয়েছে তার মধ্যে প্রথম তিনটি স্থানেই রয়েছেন রাজনীতিবিদরা। সবার প্রথমে রয়েছেন নরেন্দ্র মোদি। দ্বিতীয় স্থানে রয়েছেন পশ্চিমবঙ্গের মুখ্যমন্ত্রী তথা তৃণমূল কংগ্রেস প্রধান মমতা ব্যানার্জি, এরপরের অবস্থানে কংগ্রেস নেতা রাহুল গান্ধী।

২০১৯ সালে অনলাইনে সার্চ করা পুরুষ সেলিব্রিটি ব্যক্তিত্বদের মধ্যে সবার প্রথমে রয়েছেন বলিউড অভিনেতা সালমান খান। এই তালিকায় দ্বিতীয় স্থানে রয়েছেন অমিতাভ বচ্চন, তৃতীয় স্থানে রয়েছেন অক্ষয় কুমার। দশম স্থানে রয়েছেন সদ্য প্রয়াত নাট্যব্যক্তিত্ব গিরিশ কারনাড।

অনলাইনে সার্চ করা নারী সেলিব্রিটি ব্যক্তিত্বদের মধ্যে শীর্ষে রয়েছেন অভিনেত্রী সানি লিওন। গত কয়েক দশক ধরেই অনলাইন সার্চ তালিকায় উপরের দিকে রয়েছেন লিওন। তার পরেই রয়েছে অভিনেত্রী প্রিয়াঙ্কা চোপড়া জোনস এবং দীপিকা পাড়ুকোন।

অনলাইনে সার্চ দেওয়া শিল্পপতিদের মধ্যে শীর্ষে আছেন রিলায়েন্স ইন্ডাস্ট্রিজের চেয়ারম্যান এবং বিশ্বের নবম ধনী ব্যক্তিত্ব মুকেশ আম্বানি, এর পরেই আছেন আদানি গ্রুপের চেয়ারম্যান গৌতম আদানি, নাইকা- এর ফাউন্ডার ফাল্গুনী নায়ার, পেটিএম’এর কর্ণধার বিজয় শেখর শর্মা এবং ওইও (OYO)এর রিতেশ আগরওয়াল।

চলতি বছরে যে সব ক্রীড়া ব্যক্তিত্বদের খোঁজে অনলাইনে সার্চ দেওয়া হয়েছে-এরমধ্যে শীর্ষে রয়েছেন ভারতীয় ক্রিকেট দলের সাবেক অধিনায়ক মহেন্দ্র সিং ধোনি দ্বিতীয় স্থানে রয়েছেন রোহিত শর্মা, তৃতীয় বিরাট কোহলি। এই তালিকায় নাম রয়েছে অ-ক্রিকেট ব্যক্তিত্ব ব্যাডমিন্টন খেলোয়াড় পিভি সিন্ধু।

গত মাসেই অযোধ্যা মামলার রায় দেয় ভারতের সুপ্রিম কোর্টের সাবেক প্রধান বিচারপতি রঞ্জন গগৈ এর নেতৃত্বাধীন পাঁচ সদস্যের সাংবিধানিক বেঞ্চ। এরপর থেকেই রঞ্জন গগৈ ছাড়াও বিচারপতি এস.এ.ববদে, ডি.ওয়াই চন্দ্রচূড়, অশোক ভূষণ, আব্দুল নজির পাঁচ সদস্যের খোঁজে অনলাইনে সার্চ করা হয়েছে।

‘Yahoo India’ এর পক্ষ থেকে আরও একটি তথ্য জানানো হয়েছে। সেখানে বলা হয়েছে ২০১০ থেকে ২০১৯ সাল-গত ১০ বছরে অনলাইনে যে বিষয়টি সবচেয়ে বেশি সার্চ করা হয়েছে সেখানে শীর্ষে রয়েছে অযোধ্যা মামলার রায়। তালিকায় এর পরেই রয়েছে কাশ্মীর থেকে ৩৭০ ধারা প্রত্যাহার করা, ২০১১ সালে ভারতের ক্রিকেট বিশ্বকাপ জয়, দিল্লিতে নির্ভয়া গণধর্ষণের ঘটনা।

  •  

এ সংক্রান্ত আরও সংবাদ

সর্বশেষ ২৪ খবর