মানুষের আস্থার ঠিকানা হলো সিলেট মা ও শিশু হাসপাতাল : ডা. তারেক আজাদ

প্রকাশিত: ৭:১৪ অপরাহ্ণ, জুন ২২, ২০২১

মানুষের আস্থার ঠিকানা হলো সিলেট মা ও শিশু হাসপাতাল : ডা. তারেক আজাদ

বিজয়ের কণ্ঠ ডেস্ক
সিলেটে শিশু ও মাতৃ সেবায় অনন্য অবদান রাখছে মা ও শিশু হাসপাতাল। সার্বক্ষণিক মা ও শিশুর চিকিৎসা সেবা, সময়ের পূর্বে জন্ম নেওয়া অত্যন্ত কম ওজনের বাচ্চাকে পরিপূর্ণ পরিচর্যার মাধ্যমে সুস্থ সবল করে তোলার মাধ্যমে একটি পরিবারকে আনন্দের বন্যায় ভাসিয়ে দিতে অনন্য অবদান রাখছে হাসপাতালটি। রয়েছে ২৪ ঘন্টা নরমাল ডেলিভারী ও প্রয়োজন বোধে সিজারের ব্যবস্থা, গাইনি ও স্ত্রীরোগ বিশেষজ্ঞ সার্জন সুবিধা, ইমার্জেন্সী সেবা ও অত্যাধুনিক এবং সুসজ্জিত ল্যাব, এম্বুল্যান্স সেবা। এছাড়া দীর্ঘ দিন যাবৎ যে সমস্ত মহিলাদের বাচ্চা হচ্ছে না তাদের জন্য চালু আছে ইনফার্টিলিটি সেন্টার, যার সফলতা এখন বিদ্যমান। বর্তমানে এ হাসপাতালটি সিলেটের মানুষের আস্থার ঠিকানা।

 

মঙ্গলবার দুপুরে সিলেট মা ও শিশু হাসপাতালের হল রুমে এক সংবাদ সম্মেলনে এ সকল তথ্য প্রদান করেন হাসপাতালের ব্যবস্থাপনা পরিচালক অধ্যাপক ডা. মো. তারেক আজাদ।

 

সংবাদ সম্মেলনে তিনি বলেন, সকলের আস্থা নিয়ে মা ও শিশুদের সেবায় গড়ে উঠে সিলেটে একমাত্র মা ও শিশুর জন্য বিষেশায়িত এ হাসপাতাল। হাসপাতালটি জন্মের পর থেকেই মানুষের সেবা দিয়ে যাচ্ছে। হাসপাতালে কখনো অনেক জটিল রোগী নিয়ে আসা হয়। আর্থিক বিবেচনায় চিকিৎসার জন্য ওসমানী মেডিকেল কলেজ হাসপাতাল এবং উন্নত চিকিৎসায় ঢাকার গুরুত্বপূর্ণ হাসপাতালে রেফার করার কথা বলা হলেও কোন কোন সময় এমন জটিল রোগীরা চিকিৎসকদের শত চেষ্টায় ভাল হয়ে বাড়ি ফিরে যান। গত ৫ বছরে হাসপাতাল থেকে শত শত রোগী চিকিৎসা নিয়ে হাসি মুখে গেছেন। আর সকল ধরণের রোগীদের কথা বিবেচনা করে আউটডোর, ইনডোরে সব ধরনের চিকিৎসা ব্যবস্থা রাখা হয়েছে।

 

তিনি আরো বলেন, সিলেট মা ও শিশু হাসপাতাল যাত্রা শুরু করে ২০১৬ সালের ২৩ শে এপ্রিল। শুরু থেকেই গাইনি ও শিশুদের সেবা দিয়ে যাচ্ছে প্রতিষ্ঠানটি। মাত্র ৫ বছরে মানুষের আস্থা অর্জন করতে সক্ষম হয়েছে এ প্রতিষ্ঠান। সিলেট বিভাগের মধ্যে বিশেষ করে বাচ্চা রোগীদের জন্য এনআইসিইউ, পিআইসিইউ সেবায় অগ্রনি ভূমিকা রাখছে অত্র প্রতিষ্ঠান। সার্বক্ষনিক কনসালটেন্ট সুবিধা দিতে পারে কেবল মাত্র সিলেট মা ও শিশু হাসপাতাল। শুধু এনআইসিইউ, পিআইসিইউ নয় শিশু সার্জারীতেও একই মাত্রায় সুনাম অর্জন করছে হাসপাতালটি। যেমন বাচ্চার খাদ্যনালীর সমস্যা, পায়খানার রাস্তা নাই এমন সব জটিল অপারেশন সিলেট মা ও শিশু হাসপাতালে সফলভাবে করা হয়। এছাড়াও হাসপাতালে মহিলা ও গাইনি রোগীর জন্য আছে বিশেষ ব্যবস্থা। এখানে নিয়মিত চেম্বার করছেন শিশু বিশেষজ্ঞ ও গাইনি স্ত্রীরোগ বিশেষজ্ঞ, হৃদরোগ বিশেষজ্ঞ, কিডনীরোগ বিশেষজ্ঞ ডাক্তারগণ।

 

এসময় মা ও শিশু হাসপাতাল অতিতের মতো ভবিষ্যতেও চিকিৎসাসেবায় যাতে গুরুত্বপূর্ণ অবদান রাখতে পারে সে জন্য সকলের সার্বিক সহযোগিতা কামনা করেন হাসপাতাল কর্তৃপক্ষ।

 

সংবাদ সম্মেলনে উপস্থিত ছিলেন- সিলেট মা ও শিশু হাসপাতালের চেয়ারম্যান ডা. মো. জাকারিয়া হোসাইন, পরিচালক জামাল উদ্দিন চৌধুরী, আব্দুল হাদী পাভেল, ব্যবস্থাপক পারভেজ আহমদ, ব্যবস্থাপক এডমিন মর্শেদুর রহমান, প্রধান হিসেব রক্ষক নাজিম উদ্দিন, সুপারভাইজার বশির আহমদ প্রমুখ।

  •  

সর্বশেষ ২৪ খবর